২০১১ সালের আমার লেখা ফেসবুক স্ট্যাটাস

দেখতে দেখতে বছর চলে যায়। থেকে যায় কিছু কথা আর লেখা। ২০১১ সালটা তেমনি একটি ব্যাস্ততম বছর। তার পরেও ফেসবুকে কিছু কিছু সময় দিয়েছি। দেখে নিন ২০১১ সালে আমার লেখা ফেসবুকের কিছু স্ট্যাটাস।

 

 

 

 

২ জানুয়ারী-২০১১
অফিস থেকে বেশ কিছু ২০১১ সালের নতুন বছরের শুভেচ্ছা কার্ড দিয়েছে। (এগুলো দেওয়ার মূল উদ্দেশ্য পরিচিতদের এটা দেব ওবং তাদের মার্কেটিং হবে।) আমি বাসায় আসার পথে টোকাইদের ২০১১ সালের শুভেচ্ছা জানালাম সেই কার্ড দিয়ে..ওরা তো মহা খুসি..।

৩ জানুয়ারী-২০১১
বিভিন্ন পদ্ধতিতে মানুষ টাকা সঞ্চয় করে,বৃদ্ধি করে। কারনটা হয়তো ভবিষ্যতের প্রয়োজনে। ভবিষ্যতের প্রয়োজনে বর্তমানগুলোকে কষ্ট দিতে দিতে একদিন সব ভবিষ্যতই অতিত হয়ে যাবে, সেই দিন সকল সঞ্চই বৃথা মনে হতে পারে।

জানুয়ারী-২০১১
অফিস থেকে বেশ কিছু ২০১১ সালের নতুন বছরের শুভেচ্ছা কার্ড দিয়েছে। (এগুলো দেওয়ার মূল উদ্দেশ্য পরিচিতদের এটা দেব ওবং তাদের মার্কেটিং হবে।) আমি বাসায় আসার পথে টোকাইদের ২০১১ সালের শুভেচ্ছা জানালাম সেই কার্ড দিয়ে..ওরা তো মহা খুসি..।

১৬ জানুয়ারী-২০১১
উইকিপেডিয়ার ১০ বছর হয়ে গেলো। ১০ বছর পরে আমাদের ওয়েবসাইটগুলোর অবস্থা কেমন হবে সেই কথাই ভাবতে ভাবতে ঘুম এসে পড়ছে….

১৮ জানুয়ারী-২০১১
এলোমেলো থাকার মাঝে আলাদা একটা মজা আছে। ক্রিয়েটিভ লোকদের অনেকেই এলো-মেলো, তারা কি ইচ্ছাকৃত এলোমেলো ভাব ধরে, নাকি সারাদিন চিন্তায় চিন্তায় কাজে কাজে এলোমেলো হয়ে যায়-আজকাল সেটা বোঝা মুশকিল।

১৯ জানুয়ারী-২০১১
দিন বদলের সনদের কিছুই তো বুঝলাম না। তিন বছর ধরে তো আগের মতোই সূর্য উঠছে, পাখি উড়ছে, সূর্য ডুবে আবার আগের মতোই রাত হচ্ছে …. দিন বদলের সব চেষ্টাই কি ব্যর্থ নাকি?

২৩ জানুয়ারী-২০১১

জীবনে সমৃদ্ধি থাকুক আর নাই বা থাকুক, সুখ থাকতেই হইবো…।

২৪ জানুয়ারী-২০১১
কাউকে সত্যিকারার্থে ভালবাসা, আর কারো নিবেদিত ভালবাসা পাওয়ার মতো ভাগ্য কম লোকেরই কপালেই জুটে। – সাত বছর পরে যখন জানতে পারলাম কেউ একজন এখনো আমাকে সত্যিকারে ভালবাসে তখন শত দূঃখের মাঝেও গর্ব বোধ করলাম।

I am forgetting writing status in English … I think, my foreigner friends are leaving me.
২৮ জানুয়ারী-২০১১
আনস্মার্ট ছেলেদের কিছু কিছু মেয়েরা ভালবেসে ফেলে। মজার বেপার হলো, সেই সব মেয়েদের অধিকাংশই স্মার্ট। ……..অনেকে বলে, আমি আনস্মার্ট।

দলাদলি করা করাটা অনেকের রক্তে মিশে যায়, তাদেরকে দলছুট করার চেষ্টা বৃথা। কেউ কেউ যখন আমাকে জিজ্ঞাস করে আপনি কোন দলে, তখন অনেক বেশি অবক হই। দলহীন কি কেউ থাকতে পারে না? দলে যাওয়া কি বাধ্যতামূলক?
৩১ জানুয়ারী-২০১১

বাংলা লায়নের প্রিপেইড কার্ড চট্টগ্রাম বাজারে সুলভ না। তাই গতকাল নেট ছিল না। বসে বসে ফটোশপে দাগাদাগি করছিলাম, ঠিক বাচ্চা ছেলেদের মতো…

 ১ ফেব্রুয়ারী -২০১১
ইদানিং ঘুমগুলোও আমার সাথে প্রতারনা শুরু করেছে… রাতের বেলা আসে না, ভর দুপুরে হানা দেয়।

ফেব্রুয়ারী -২০১১
টাকা আয়টা যত কঠিন তার চেয়ে হাজার গুনে কঠিন নিজের স্বাধীনতা বজায় রেখে টাকা আয়। অধিকাংশ ক্ষেত্রে যত বেশি আয়, তত কম স্বাধীনতা।

৮ ফেব্রুয়ারী -২০১১
চোখ বন্ধ করলেই তো বেশি দেখা যায়….মনে হচ্ছে।


১৪ ফেব্রুয়ারী -২০১১
ভাল বাসতে বাসতে ভালবাসা দিবসে তো সব ভালবাসাই শেষ কইরা দিলা, সারা বছরের জন্য কিছু রাখলা না?


১৭ ফেব্রুয়ারী -২০১১
‘তুই’ বলা লোকের সংখ্যা কমে যাচ্ছে দিন দিন। সবাই বড় হচ্ছে..সম্মানিত ব্যক্তিতে পরিনত হচ্ছে… আর তুই থেকে তুমি বা আপনিতে রূপান্তরিত হচ্ছে… আমাকেও এখন খুব কম লোকই ‘তুই’ বলে… অথচ ফাজলামী আমলের ‘তুই তোকারী’র মজাই আলাদা ছিল…। পুরানো বন্ধু/বান্ধবী বান্ধবীকেও তাদের স্ত্রী/স্বামীর সামনে ‘তুই’ বলতে লজ্জা পাই 😛

২০ ফেব্রুয়ারী -২০১১
২ দিনে ৬০০ কিলোমিটার ভ্রমনের পর মনে হলো…পৃথিবীর এত মানুষ, শুখ-দুঃখ আর জীবনবোধের কত কিছুই জানি না…। রাস্তার দুই ধারের মানুষের বিচিত্র জীবনের কত হাসি… কত কান্না, বিজয়ের আনন্দ আর লুকায়িত কষ্টের মধ্যে যে কত দর্শন, কত বিজ্ঞান যে ঘুমিয়ে আছে..তার কয়টা খবর কয়জন জানে…!!!

২৭ ফেব্রুয়ারী -২০১১
আসাদগেটে একটা ‘কবিদের আড্ডা’ বসতো প্রতি সপ্তাহের বিকেল বেলা। আমি বেশ কয়েক
সপ্তাহ সেখানে উপস্থিত হয়েছিলাম। নিজেদের কবিতা উপস্থাপন হতো সেখানে। তার
পর সবাইমিলে আলোচনা, সমালোচনা করতো। একটা সময় সপ্তাহ শেষে পাঠের বিষয়ে
নিজেদের অভিজ্ঞতা শেয়ার করা হতো।
এরকম পাঠ চক্রে এখন য্ওয়া যাওয়া হয় না।

আলোচনাটা যে মূল বিষয়ের চেয়ে গুরুত্বপূর্ণ তা সেখানথেকে আমি জেনেছি। 

১ মার্চ-২০১১
বাসার ভেন্টিলেটরে চড়ুই পাখি বাচ্চা দিয়েছে…। এখন চড়ুইবাচ্চা গুলো বাবা-মায়ের পাখনার আওয়াজ পেলেই হা করে থাকে… হয়তো খাবার এসেছে। বাবা-মায়ের চিন্তার অন্ত নেই্.. কবে যে এরা উড়তে শিখবে? (চড়ুই বাবা-মার পক্ষ থেকে স্ট্যাটাস আপডেট দিলাম) 

৪ মার্চ-২০১১
রেকর্ড তো একটা করতে হইবো… ওয়ার্ল্ড কাপ-২০১১ এ সবনিন্মরানের রেকর্ডটা না হয় আমরাই করলাম।
যারা এতা টাকা দিয়া দিনভর খেলা দেখার জন্য রাত ভর লাইনে দাড়িয়ে টিকেট কাটলো তাদের এই অল্প সময় লেখা দেখানোর জন্য টিকেটের টাকা ফেরত দেওয়া উচিৎ অথবা খেলা শেষে হা-ডু-ডু খেলার আয়োজন করলেও পারতো.. জাতীয় খেলায় অন্তত খারাপ করতাম না 😛

৯ মার্চ-২০১১
একা একা পথ হেটে হেটে অনেক দূর চলে যেতে বেশ ভাল লাগে আমার……. যদিও সবাই সঙ্গীকে সাথে নিয়ে চলতে ভালবাসে..তারা কি আসলে ‘পথ হাটা’কে উপভোগ করে, নাকি সঙ্গীকে?

১২ মার্চ-২০১১
পরীক্ষার হলে লিখতে না পারলেও পরিদর্শকের সামনে কলম উচিয়ে রাখতে লজ্জা করে…. ইদানিং আমার হয়েছে এই দশা। লিখতে পারছিনা… তবুও প্রযুক্তি ওয়েবে দু-চার অক্ষর না লিখতে পেরে হতাশাগ্রস্ত হয়ে পরছি..

১৬ মার্চ-২০১১ 
দূরে থাকাই ভাল, অন্তত খারাপ দিকগুলা প্রকাশিত হয় না…

১৮ মার্চ-২০১১
জীবনকে লক্ষ্যহীন করার প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। ভবিষ্যত লক্ষ্যকে প্রতিষ্ঠিতে করতে বর্তমানকে বিলিয়ে দিতে চাই না। পড়া থাকবে.. পরীক্ষা থাকবে না, কাজ থাকবে..কিন্তু উদ্দেশ্য থাকবে না। ভাল বা মন্দ সব কিছুতে সন্তুষ্ট থাকার মতো কে আছে…চলে আসুন আমার সাথে।

২৪ মার্চ-২০১১
মার্কেটিং এবং কাষ্টমার কেয়ার এই দুইটা জিনিস শেখা দরকার.. যদিও এই প্রফেশনটা সবসময়ই অপছন্দের তালিকায় রাখতাম।

২৫ মার্চ-২০১১
Good or bad, honest or dishonest, you love or not, what ever… is not matter, Democracy will save more people’s leader’s opinion. So I never prior democracy in my professional life.

২৬ মার্চ-২০১১
ভালবাসা পেয়েও অনেকে ভাল বাসা পায় না। ভাল বাসা পেয়েও অনেকেই ভালবাসা পায় না।

২৭ এপ্রিল-২০১১
8GB’r একটা ওয়েবসাইট ব্যাকআপ নিতে হবে, 2GB’r একটা সাইট আপলোড করতে হবে… হাতে আছে ২৫৬ kb/s লাইন…
১ মে-২০১১ 
মে দিবসে ফয়’স লেক এলাকাটা মেয়ে দিবসে পরিনত হয়েছে… যে কোন ‘দিবস’ এলেই চলে, জুটির সংখ্যা হুট হাট বাড়তে থাকে…


৩ মে-২০১১ 
দিন দিন ভাল অভিনেতা হচ্ছি… এই কারো সাথে রাগান্নিত হয়ে কথা বলছি, পর মুহুর্তেই আরেক জনের সাথে হাসি মুখে কথা বলছি, কান্না পেলেও কাঁদছি না, হাসি পেলেও হাসি চেপে রাখছি।


১৫ মে-২০১১ 
নিজেকে চাকরীজীবি ভাবার চেয়ে ব্যবসায়ী ভাবতে বেশি ভাল লাগে, তার চেয়ে বেশি ভাল লাগে নিজেকে বেকার ভাবতে।

১৭ মে-২০১১
অনেক দিন ধরে কবিতা পড়া হয় না। মাথার গরম প্রসেসরের কুলিং ফ্যান হিসেবে কবিতার ভূমিকা ব্যাপক।

২১ মে-২০১১
টেলিফোন লিস্ট বানাতে হবে- দৈনিক, সাপ্তাহিক, মাসিক, তিন মাসিক, বাৎসরিক, ইভেন্ট এভাবে থাকবে… এক এক জনকে এক এক সময় পর পর ফোন করবো..দৈনিকে থাকবে- বাবা, মা, ভাই, বোন, প্রেমিকা, ঘনিষ্ট বন্ধু। সাপ্তাহিকে থাকবে-বন্ধু, দুলাভাই,ভাবি। মাসিকে থাকবে- খালা, মামা, ফুপু, কাকা, কাজিন, পুরানো বন্ধু…. ইভেন্টে আলাদা একটা লিষ্ট থাকবে-যাতে কেউ বলতে না পারে “খবর নিলা না”।

২৩ মে-২০১১
 এক সময় ভবিষ্যত ভবিষ্যত করে পড়ালেখা করছিলাম, হিসাব মতো এখনই সেই ভবিষ্যত হওয়ার কথা…. কিন্তু ভবিষ্যত তো খুজে পাচ্ছি না।

১ জুন -২০১১
সহজ কাজসমুহ গভীর মনোযোগ দিয়া সম্পাদন করাও এক ধরনের মেধার অপচয় বলিয়া মনে করি। আর এ জন্য অনেকে আমাকে অন্যমনষ্ক ও অসচেতন বলিয়া থাকে।

১১ জুন -২০১১
সারাটা সকাল আলসামী করে যখন দেখি অফিসের সময় হয়ে গেছে.. তখন তিন মিনিটে গোসল সারি, ৩০ সেকেন্ডে একটা রুটি খেয়ে , মিনিটের মধ্যে কাপড় চেঞ্জ, ১৫ সেকেন্ড ল্যাপটপ ব্যাগ গোছানোর পরে চুল না আচরিয়েই অফিসের জন্য দৌড় দিলাম..। তিন সেকেন্ড আগেই ডিজিটাল এটেন্ডেন্স কার্ড পাঞ্চ করতে পারলাম। ওহ.. কি শান্তি..

পকেট দেখি ফাঁকা হয়ে গেছে… ড্রয়ের থেকে শেখ মুজিবুর রহমানের ৪১ টা মাথা খুজে পেলাম… এগুলো দিয়ে বিকেলের চা-নাস্তাটা ভালই জমে উঠলো।

১৪ জুন -২০১১
 সাত দিন ধরে পরিশ্রম করে বেশ কিছু ভিডিও টিউটোরিয়াল বানালাম। স্ক্রিন ক্যাপচার করে তাতে শব্দ যুক্ত করে অনেক কষ্ট করে সি-প্যানেলের ভিডিও টিউটোরিয়াল গুলো বানালাম, তবে তার চেয়ে বেশি কষ্ট হচ্ছে ভিডিওগুলোকে টিউবে ঢুকাতে http://tutorialbd.com/service/hosting-tutorial.html

১৭ জুন -২০১১
সব কাজ বাদ দিয়ে এখন আমার একটা কাজ করা দরকার । তা হলো-“কোন কাজ না করা” 😀

১৮ জুন -২০১১
যদিও আমার চেহারাটা সব সময়ই ক্যামেরার সামনে বিভৎস লাগে .. তার পরেও কিছু ছাত্রদের শিখানোর জন্য ভিডিও টিউটোরিয়াল বানানোর সখ করলাম। যে সব বিষয় জানি তা হলো- কম্পিউটার হার্ডওয়্যার, নেটওয়ার্ক,ওয়ার্ডপ্রেস, এইচটিএমএল, সিএসএস,ওয়ার্ডপ্রেস, জুমলা, পিএইচপি(হালকা)। এর মধ্য থেকে আস্তে আস্তে শুরু করবো-ভাবছি।

৩০ জুন -২০১১
ঝড় বৃষ্টি বন্যা তুফান হরতাল অবরোধ সবসময়ই ভাল লাগে.. আমার, স্বাভাবিক ভাবে অনেক দিন এক রকম থাকা ভাল লাগেনা

১০ জুলাই -২০১১
হরতাল ভাল লাগে, হরতালের মধ্যে নেতাদের পিটুনি খাওয়া আরো ভাল লাগে। ভাল লাগে না যখন লোকজন একই সাথে দুই নেত্রীর বিরুদ্ধে কথা বলে নিজে দের রাজা বাদশা ভাবা শুরু করে।

১২ জুলাই -২০১১
বাচ্চাদের অনেকে দুষ্টামী করতে নিষেধ করে, খেলাধুলায় বাধা দেয়। আমি বলি যত খুশি দুষ্টামী করে যাও.. এক সময় চাইলেও এই সময় পাবে না… সময়কে হাত ছাড়া করা উচিৎ না।

২২ জুলাই-২০১১
সিদ্ধান্ত না দেওয়ায় রাগ করে ফোনটা কেটে দিল…। নিজের জীবনের গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্তই যেখানে নিতে যে হিমসিম খায়, সে আবার কিভাবে অন্যের কোন বিষয়কে ভাল বা মন্দ বলবে?

২৮ জুলাই-২০১১
টানা দুই বছর পরে মেয়েটি ফোন করলো এবং যত্ন করে আমার নাম্বারটি সেভ করলো। আমি শুধু বল্লাম এইচএসসি পাস করেছ, জিপিএ….- ফোন কেটে গেলো। আবার পরবর্তি রেজাল্টের সময় ফোন আসবে। বুঝলাম- প্রয়োজন ছাড়া যারা ফোন করে না তাদের দলের লোক দিন দিন বাড়ছে।

১ আগস্ট-২০১১
যে গাছের পাতা সুন্দর সে গাছের ফুল সুন্দর না, যে গাছের ফুল সুন্দর সে গাছের ফল সুখাদ্য না। আর তাই একজনের মধ্যে সব ধরনের গুণাগুন অনুসন্ধান না করে একটি সৌন্দর্য্যকে উপভোগ করে সন্তুষ্ট থাকা উচিৎ।
৮ আগস্ট-২০১১
 ধার্মিক আর টেকি লোকের মধ্যে অদ্ভুত এক মিল আছে। উভয়েই নিজের মধ্য থেকে আনন্দ সৃষ্টি করতে জানে, অথচ বিনোদনের জন্য অন্যরা বিভিন্ন ধারা অনুসন্ধান করে ছুটে চলে।

১৪ আগস্ট-২০১১
মাথা থেকে একটা বোঝা নামালে … দুইটা বোঝা আবার উঠে যায়। পৃথিবীতে অনেক বড় বড় পরিকল্পনা শুধু বোঝা উঠানোর জন্যই… দুই একটা ছোট পরিকল্পনা করা দরকার যার মাধ্যমে বোঝা নামানো যায়।

২৪ আগস্ট-২০১১
শিশু শ্রম অপরাধ, তাই ভিক্ষা করছি। রাস্তা ঘাটে নেশা দোষের, তাই বড় হোটেলে গিয়েই নেশা করি। বাল্যবিবাহ অপরাধ.. বাল্য প্রেমে দোষ কি? ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেওয়া অপরাধ,তাই মঞ্চে চিল্লাই।
২৬ আগস্ট-২০১১
তুমি কি কাউকে সব দিক থেকে সেরা ভাবতে পারো? এমন কি কেউ আছে যে তোমাকে সব দিক থেকে সেরা মনে করে? শুধু মাত্র সৌভাগ্যবানদের ক্ষেত্রেই এটা মিলে যায়।

২৯ জুলাই-২০১১
দির্ঘদিন নিয়মিত সুসম্পর্ক রাখাটা কঠিন বিষয়। নিজে ত্যাগ স্বীকার করে অনেক দিনের সুসম্পর্ক গড়ে তুলে দেখুন – সম্পর্কটাকে অনেক দামী মনে হবে। এ যুগে সম্পর্কের সংখ্যা বেশি, পরিধী ও স্থায়ীত্ব অনেক কম।

৫ সেপ্টেম্বর-২০১১
১১ টা সাইট এক সারভার থেকে অন্যটাতে ট্রান্সফার শুরু করলাম। (আমার) স্মরণকালের সর্বাধিক সাইট ট্রান্সফার করছি। একটু ভয়ও করছে…। দেখা যাক সব কিছু ঠিক মতো কাজ করে কিনা। 

৭ সেপ্টেম্বর-২০১১
শিশুদের শুধু ভালবাসলেই চলবে না, তাদের সম্মান করা উচিৎ, তারদেরকে সঠিক পথে কঠোরভাবে পরিচালনা করাও উচিৎ। ওদের সামনে অনেকগুলো পথ রয়েছে, এক এক জন এক একটাকে সঠিক বলে বেড়ায় এবং তারা কোন পথই খুজে পায় না। “এটা কেন করা উচিৎ” তাও বুঝিয়ে বলতে হবে, কারন মন থেকে কোন কিছু গ্রহণ না করলে সেটার স্থায়ীত্ব থাকে না। অনেককেই ছোট বেলা সঠিক পথে চলে পরবর্তি জীবনে পথভ্রষ্ট হতে দেখেছি – কারন তারা মন থেকে সেই “পথ” টাকে গ্রহণ করতে পারে নাই,শুধুই পরিচালিত হয়েছিল।

৮ সেপ্টেম্বর-২০১১
দশ বছর আগে এক বান্ধবীর (ক্লাস ফ্রেন্ড) বাসায় গিয়েছিলাম, বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরিক্ষার বেপারে সহায়তা করতে। ওর টেবিলে বেশ কিছু কবিতা আর উপন্যাসের বই ছিল। একটা বই নিয়ে কথা উঠলো তখন ও বইটা খুলে আন্ডারলাইন করা একটি লাইন দেখালো – “প্রেমিক কখনো অভিজ্ঞ হয় না, অভিজ্ঞ লোক প্রেম করতে জানে না।” জানালার বাইরে যখন বৃষ্টি ভেজা পাহাড়ের দিকে তাকালাম তখনই লাইনটা মনে পরলো।

৯ সেপ্টেম্বর-২০১১
সকালবেলা পবিত্র কোরআন তেলাওয়াতের মাধ্যমে কর্মসুচি শুরু, ২০ মিনিট কোরআন তেলাওয়াত, তার পরে বাংলা হালকা গান, তার পর দুই একটা ঘোষণা, তার পরে মাইকে চলে ডিসকো গান যাতে নৃত্ত করতে মন চায়। বিকেলে কসার্ট-সেখানে নেচে গেয়ে মন মাতানো হয়-এটা একটা পার্কের মাইকের সময়সূচি। মার্কেট, যানবাহন, জনসভা, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানগুলোর প্রথমে এরকম কোরআন তেলাওয়াত ও তার পরেই গান বাজনা কি ধর্ম নাকি সংস্কৃতি?

চট্টগ্রামে একটি সেমিনারের পরিকল্পনা করা হচ্ছে। এখানে বেশ কিছু উদ্যমী তরুনকে পেলাম। সেমিনারের ভাল একটি জায়গা, একটা প্রজেক্টর আর লাইফকাস্টিং এর জন্য ভাল গতির ইন্টারনেট সংযোগের যোগানের প্রচেষ্টা চলছে। ঘরে বসে ফেসবুকে অনেক বড় বড় কথা বলা যায়, অনেক লোকের মাঝে কথা বলা কি সহজ?

১২ সেপ্টেম্বর-২০১১
বড়রা ভুল করলে ছোটরা বেশি কষ্ট পায়, যতটা না ছোটরা ভুল করলে বড়রা পায়। তাই বড়দের একটু বেশি সাবধানেই চলা উচিৎ।

অন্যের প্রেম -অপসংস্কৃতি, নিজের প্রেম পবিত্র 😛

১৪ সেপ্টেম্বর-২০১১
কষ্ট পেতে পেতে মানুষ কষ্ট দেওয়ার ক্ষমতা অর্জন করে

ছোট বেলা ভাল মানুষ হতে চেয়েছিলাম, টাকা কামাইয়ের প্রচেষ্টায় এখন সেই কথা ভুলেই গিয়েছি, অনেককে অনেক উপদেশ দিয়েছি, বড় বড় কথা বলেছি, অখচ “কিভাবে ভাল মানুষ হওয়া যায়” সেটাই জানি না। আপনাদের জানা থাকলে জানাবেন কি?

১৭ সেপ্টেম্বর-২০১১
বাংলাদেশের সব মানুষই আমেরিকার প্রানভর সমালোচনা করে, অখচ ডিভি বন্ধ হওয়াতে অনেকেই হতাশাগ্রস্ত… আজব দেশ, আর এর আজব জনগণ। মুথে দেশপ্রেম অথচ এই দেশের নাগরিকত্ব বাতিল না করতে পেরে কত দুঃখ।

১৮ সেপ্টেম্বর-২০১১
বেশ কিছু দুঃখিনীদের সাথে পরিচয় হচ্ছে… দিন দিন তাদের সংখ্যা বাড়ছেই। হতাশাগ্রস্ত পুরুষদের চেয়ে নারীদের সংখ্যাই মনে হয় বেশি। অধিকাংশের হতাশার কারন হলো, তারা প্রিয়জনকে যেভাবে চেয়েছে সেভাবে পায় নি বা প্রিয়জনের অনুপস্থিতি বা সামাজিক নিরপত্তাহীন-বোধ।

১৯ সেপ্টেম্বর-২০১১ 
সাদা দাড়িওয়ালা এক বৃদ্ধ ভিক্ষুক ভিক্ষা চাইলো, ভ্রুক্ষেপ না করে সামনের দিকে চলে গেলাম। একটু পরে চিন্তা করলাম, ভিক্ষা দেওয়া উচিৎ। পেছনে তাকিয়ে দেখি সে নাই। এদিক সেদিক তাকিয়ে খোজতে লাগলাম। চোখে পরলো, এতক্ষনে দূরে চলে যাচ্ছে, এবার তার পেছনে ছোটলে লাগলাম। মনে হচ্ছে- আমিই ভিক্ষুক।

২২ সেপ্টেম্বর-২০১১
চাকরী ক্ষেত্রে ফ্রেশ লোক পাওয়া সহজ, বিয়ের ক্ষেত্রে কঠিন।

২৫ সেপ্টেম্বর-২০১১
মানুষ যতই শিক্ষিত হচ্ছে ততই চাহিদাগুলোকে নিয়ন্ত্রণ করার ক্ষমতা হারাচ্ছে।

২৬ সেপ্টেম্বর-২০১১
এক জায়গায় বিশাল রাজনৈতিক বিতর্ক চলছিল। আমি প্রবেশ করলাম, একজনকে জিজ্ঞাস করলাম- আপনি কি গনতন্ত্র সমর্থণ করেন?-উত্তর হা, আপনি কি দূর্নীতি বিরোধী?-উত্তর হা। আমি বললাম, দেশের জনগণ যদি তাদের প্রতিনিধী হিসেবে দূর্নীতিবাজ কোন ব্যক্তিকে দেশের প্রতিনিধী বানায় তাহলে তাকেই আপনার মেনে নেওয়া উচিৎ। রাজাকারকে সংসদে দেখে আবেগাপ্লুত হলে চলবে না, আবার সংখ্যালঘুদের কষ্টে সরকারকে সমালোচনা করলে চলবে না, অর্থনৈতিক বৈশম্য দেখে ভীত হওয়ার কিছু নাই। পাঁচ বছরের জন্য তাদের ক্ষমতা দিয়েছেন, ভাল না লাগলে আগামীতে তাদের কাছে ক্ষমতা দিবেন না, চিল্লাচিল্লি করে যতই গলা ফাটান দেশের ভাল কিছু করার ক্ষমতা আপনাদের নাই। রাস্তায় যাদের পোষ্টার বেশি তাদের ব্যলট পেপারে সিল মারা ছাড়া আপনারা কি-ই বা পারেন?
রাজনৈতিক বিতর্ক এবার ভিন্ন রাস্তা খুজতে লাগলো-আমি চলে গেলাম।

২৮ সেপ্টেম্বর-২০১১
“দিল্লি কা লাড্ডু যবি খায়েগা ওবি পস্তেগা, যবি নেহি খায়েগা ওবি পস্তেগা” – কথাটা শুনে জিজ্ঞাস করলাম “লাড্ডু”টা কি? উত্তরে বলল, “বিয়ে” । তাইলে লাড্ডু খেয়ে পস্তালেই তো ভাল 😛 

৫ অক্টোবর-২০১১
কয়েকদিন আগে বুঝতে পারলাম, মেয়েরা ছেলেদের কাছে দুটি জিনিস চায়- ভালবাসা ও নিরাপত্তা। প্রথম দিকে প্রখমটির , শেষ দিকে শেষেরটির চাহিদা বেশি খাকে। প্রথমটি দিতে ছেলেদের কার্পন্য নাই, দ্বিতীয়টির বেলায় একেবারেই সে অবুঝ। বেশ কিছু মেয়ের চোঁখে তাকিয়ে দেখেছি, তারা একটি নিরাপদ পরিবেশে ঠাই নেওয়ার স্থির প্রচেষ্টায় ব্যাকুল।

অক্টোবর-২০১১
তোমাদের সময় সীমিত। কাজেই কোনো মতবাদের ফাঁদে পড়ে, অর্থাৎ অন্য কারও চিন্তাভাবনার ফাঁদে পড়ে অন্য কারও জীবনযাপন করে নিজের সময় নষ্ট কোরো না। যাদের মতবাদে তুমি নিজের জীবন চালাতে চাচ্ছ, তারা কিন্তু অন্যের মতবাদে চলেনি, নিজের মতবাদেই চলেছে। তোমার নিজের ভেতরের কণ্ঠকে অন্যদের শেকলে শৃঙ্খলিত করো না। আর সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ কথা হলো, নিজের মন আর ইনটুইশনের মাধ্যমে নিজেকে চালানোর সাহস রাখবে। …… স্টুয়ার্ট ও তাঁর টিম একটি পত্রিকার অনেক সংখ্যা বের করেছিল। সত্তরের দশকের মাঝামাঝি সময়ে, আমার বয়স যখন ঠিক তোমাদের বয়সের কাছাকাছি, তখন পত্রিকাটির শেষ সংখ্যা প্রকাশিত হয়। বিদায়ী সেই সংখ্যার শেষ পাতায় ছিল একটা ভোরের ছবি। তার নিচে লেখা ছিল—ক্ষুধার্ত থেকো, বোকা থেকো। এটা ছিল তাদের বিদায়কালের বার্তা। ক্ষুধার্ত থেকো, বোকা থেকো। (- স্টিভস জবস)

৮ অক্টোবর-২০১১
 আমার ভাগনিটা জানে না যে আমি একসময় টিউশনি করতাম এবং বেত মারতাম, তাই আমার সামনেই চরম দুষ্টামী করছে। কম্পিউটারগুলোও ভুলে গেছে যে আমি একসময় হার্ডওয়্যারের কাজ করতাম.. আর তাই আমার সামনে ফাজলামো করছে.. আর বার বার রিস্টার্ট মারছে।

২৪ অক্টোবর-২০১১
একটা সময়ের পর মেয়েরা কাউকে বিশ্বাস করতে পারে না, সেই সময়ের আগের জীবনটাই তাদের গুরুত্বপূর্ণ । একটা সময় পর ছেলেরা মেয়েদের বেপারে উদাসহীন হওয়া শুরু করে, তখনই তাদের জীবনের গুরুত্বপূর্ণ সময় শুরু হয়। (নিজস্ব মতামত)

৩০ অক্টোবর-২০১১
প্রেম করাটা সহজ আর বিয়ে করাটা কঠিন। তাই্ আজ-কাল কিছু ছেলে অনেকগুলো মেয়ের সাথে প্রেম করে আর একটা বিয়ের কথা আসলেই একটা প্রেম বিচ্ছেদ – পদ্ধতি অবলম্বন করছেন। এই কাজটি সমাজে দুইটা উপকার করছে-১. যেহেতু বাল্য বিবাহ অপরাধ ও বাল্যপ্রেম অপরাধ নয় – তাই সমাজে অপরাধ প্রবণতাও কমছে ২. ছেলে মেয়েদের বেশি বয়সে বিয়ে করতে উদ্বুদ্ধ করছে, তাই জন্ম নিয়ন্ত্রনে থাকছে । —- আপনার কি মতামত?

৩১ অক্টোবর-২০১১
চট্টগ্রাম বসবাসের দুই বছর হয়ে গেল। এ দু’ বছরে এখানে কি কি করলাম তার হিসাব করার সময় হয়েছে। বিজ্ঞান-প্রযুক্তি ব্লগ আর টিউটোহোস্ট এই দুইটি সাইটকে এগিয়ে নেওয়া ছাড়া আর তেমন কোন সাভল্য চোখে পড়ছে না।

৭ নভেম্বর-২০১১
কোলাকুলি করলে বুঝা যায় কার উচ্চতা বেশি বা কম, মোটা বা চিকন । কথা বললে বুঝা যায় কার চিন্তা কি। এক সাথে কাজ করলে বুঝা যায় কার মাথায় কি আছে। একসাথে বসবাস করলে কার আচার ব্যবহার কেমন তা জানা যায়। ভালবাসলে এইসব ব্যবধান দূর করার সূত্র শেখা যায়।

একই সাথে ব্লগিং, চাকরী এবং ওয়েব হোস্টিং ব্যবসা আমার জন্য একটি বোঝার মতো হয়ে যাচ্ছিল। আনেক চিন্তা করে কাজ কমানোর সিদ্ধান্ত নিলাম। আর তাই ওয়েব হোস্টিং কাস্টমারকেয়ারকে একটু আলাদা করে একজনকে নিয়োগ দিলাম। আশা করা যায় এখন নিশ্চিন্তে চোখ বুজতে পারবো।

১০ নভেম্বর-২০১১
দাঁতে গরু ঢুকেছে। বের হতে পারছে না, আর দৌড়াদৌড়ি শুরু করেছে…. এদের মুক্তি না দিলে আমারও মুক্তি নাই।

১১ নভেম্বর-২০১১
11/11/11

১৫ নভেম্বর-২০১১
আবার বই পড়া শুরু করবো… নিলক্ষেত গিয়ে কিছু বই কিনবো। শরতের বইটা হারিয়ে গেছে ওটা কিনতে হবে। আর কোন কোন বই কেনা যায়?

২০ নভেম্বর-২০১১
একসময়ের ধর্মীয় ও সামাজিক বৈশম্যগুলোকে দেখিয়ে দিয়েছিল নজরুল, শরতচন্দ্রসহ অনেকেই। আধুনিক সময়ের বৈচিত্রময় সাংস্কৃতিক পার্থক্যের মধ্যে একটি রেখা টানার মতো কোন একজন লেখকের অনেক অভাব বোধ করছি।

২৫ নভেম্বর-২০১১
ক্যারিয়ারের দুঃচিন্তাই জীবনকে জীবন হতে দূরে ঠেলে দিচ্ছে। ছোট বেলায় ঘুড়ি উড়াতে পারি নি-ক্লাসের পড়া রেডী করতে হবে, হাই স্কুলো ক্লাস ফাঁকি দিয়ে ফুটবল ম্যাচ খেলা বা সিনেমা দেখা হয় নি কখনো, কলেজে যখন ছেলে মেয়েরা একে অন্যকে আবিষ্কারের চেষ্টায় রত তখন হয়তো আমি নিজেকে সরানোর প্রবল প্রচেষ্টায়….। মনের তালিকায় ক্রস দিতে দিতে খাতা শেষ করে ফেললাম। এখন চাকরী জীবন, সময় মতো অফিস করা আর ছুটি না নিয়ে কাজ করলে প্রোমোশন হতে পারে। এটাকেই কি জীবনের স্বার্থকতা বলে? ক্যারিয়ারের দুঃচিন্তাই জীবনকে জীবন হতে দূরে ঠেলে দিচ্ছে।

৫ ডিসেম্বর-২০১১
অনেক দিন ধরে কাঁদি না.. অবাক বেপার। যাদের কান্নার উপকরণ নাই তাদের কি করা উচিৎ? একজন এই প্রশ্নের জবাবে বলল, “প্রেম কর” ।

দূঃচিন্তাগুলোর বয়স এখন অনেক বেশি হয়ে গেছে.. ওরা এখন আমার কাছ থেকে মুক্তি চায় কিন্তু দিতে পারছি না। কোন নতুন চিন্তা না আসার আগে কিভাবে এদের বিদায় দেই? একেবারে কর্মহীন তো হওয়া যাবে না।

ডিসেম্বর-২০১১

কখনোই ভাবা যাবে না মোবাইল, কম্পিউটার, ইন্টারনেট, ফেসবুক ছাড়া জীবন চলবে না। কখনোই মেশিন দিয়ে নিয়ন্ত্রণ করে করে নিজেকে পুতুল বানানো যাবে না। ভাবতে হবে.. আমার প্রয়োজনে একে ব্যবহার করবো – অপ্রয়োজনে ছুড়ে ফেলে দেবো। শুধু মাত্র বাড়তি কিছু সুবিধা দিবে এরা – এর চেয়ে বেশি কিছু না। 

১০ ডিসেম্বর-২০১১
রাজনৈতিক আলাপ, প্রেম বিষয়ক আলাপ আর ধর্ম বিধর্মের আলাপের মধ্যে একটা মাদকতা আছে। চিন্তা করে দেখলাম- এই তিনটার কারনে মানুষ অনেক বড় কিছু এবং অনেক ছোট নীচ কিছু করে ফেলতে পারে। স্বভাবতই ভাল লোকগুলো এই বিষয়গুলোর মধ্য ভাল কিছু এবং খারাপলোকগুলো খারাপ কিছুর অনুসন্ধান করে। 

১১ ডিসেম্বর-২০১১
চোখ বুজে ঢিল ছুড়েও যে খুটিটিকে লাগাতে পেরেছিলাম এখন চোখ খোলা রেখেও তা পারছি না।
হয়তো মনোযোগগুলো বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে… হয়তো সেই দিন ফিরে আসার নয়।

১২ ডিসেম্বর-২০১১
অনলাইনে যারা মেয়ে ছবি দিয়ে ফেইক আইডি বানায় তাদের আমি ধন্যবাদ জানাই এতো ফেইক আইডির কারনে সত্যি আইডির মেয়েরা ফেসবুকে বেশ নিরাপদে থাকতে পারছে। আর যারা ফেইক আইডির সাথে বন্ধুত্ব করছে এবং মেসেজ পাঠাচ্ছে তাদের অনেককেই চিনি, তাদের কারো উদ্দেশ্যই সৎ না।

১৬ ডিসেম্বর-২০১১ 
ছাত্র,শিক্ষক,কৃষক, শ্রমিকসহ সাধারন অনেকের জীবনের বিনিময়ে আমাদের এই স্বাধীনতা। ছোটবেলা অনেক দরিদ্র মুক্তিযোদ্ধাকে অনেক কাছে থেকে দেখেছি, এখন তাদের খুজেও পাই না, হয়তো অনেকে মারাও গেছেন। আপনার কাছাকাছি যদি কোন মুক্তিযোদ্ধা থাকে তাহলে দয়া করে তাদেরকে আমার নাম বলে সালাম জানাবেন। আমি জানি আমরা কখনোই তাদের মূল্যায়ন করি নি আর করা হবেও না, আমাদের এই দেশ তাদের তেমন কিছুই দিতে পারে নি। চলুন আমরা তাদের শ্রদ্ধা জানাই আর তাদের জন্য আল্লাহর কাছে দোয়া করি।

১৮ ডিসেম্বর-২০১১
খুব সহজেই স্বপ্ন জন্ম নেয়, কিন্তু সহজেই মৃত্যুবরণ করতে চায় না
খুব সহজেই ভালবাসা জন্ম নেয়, কিন্তু সহজেই মৃত্যুবরণ করতে চায় না …

(মোট শব্দ আনুমানিক ৩০০০)

২০১২ সালের ফেসবুক স্ট্যাটাস সমুহ এই লিংকে। যার মোট শব্দ আনুমানিক ২০০০

২০১৩ সালের ফেসবুক স্ট্যাটাস এই লিংকে

আরো পড়ুনঃ

মাহবুব টিউটো

তিনি টিউটোরিয়ালবিডিসহ বেশ কিছু সফল অনলাইন প্রোজেক্টের উদ্যোক্তা ও পরিচালক। তিনি বর্তমানে একটি গ্রুপ প্রতিষ্ঠানে তথ্যপ্রযুক্তিতে কর্মরত আছেন। তার জন্ম, পড়ালেখা এবং আবাস্থল ঢাকায়। ফেসবুকে আর সাথে যোগাযোগ করতে পারেন। তার ইউটিউব চ্যানেলে ঘুরে আসতে পারেন। 


ফেসবুকের মাধ্যমে মন্তব্য লিখুন

  3 comments for “২০১১ সালের আমার লেখা ফেসবুক স্ট্যাটাস

  1. ডিসেম্বর 22, 2011 at 5:32 অপরাহ্ন

    খুব ভাল লাগল| ওয়েব হোসটং ভিডিও ভাল হয়েছে

    সাজ্জাদ
    চট্গ্রাম

  2. ডিসেম্বর 22, 2011 at 5:22 অপরাহ্ন

    দারুন কালেকশন… অবশ্য এতো সহজে খুজে পেয়েছেন টাইমলাইনের কারনে !! 🙂

মন্তব্য করুন

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.