জাভা সিকিউরিটি সমস্যা থেকে বাঁচার উপায়

আপনি হয়তো ইতিপূর্বে Java’র সিকিউরিটি সমস্যা সম্পর্কে অবগত হয়েছেন। তাই অনেকে এ বিষয়টি নিয়ে সবাই চিন্তায় আছেন। অনেক আলোচনাও হচ্ছে। সমাধানও বের হচ্ছে। তবে যারা এখনও সমস্যা নিয়ে কোন কূল কিনারা খুঁজে পাচ্ছেন না তারা হয়তো বা এই আর্টিকেলটি থেকে সমাধান পেতেও পারেন। Java যে সবার প্রয়োজন তা কিন্তু নয়। কিছু মানুষ প্রয়োজন ছাড়াই জাভা ইন্সটল করে এবং নিজেদের কম্পিউটারকে ক্ষতির সম্মুক্ষীন করে । তাই যদি পারেন তাহলে জাভা ইন্সটল আনইন্সটল করে রাখুন।

যা হোক কারও কারও কম্পিউটারে আবার জাভা ইন্সটল করার প্রয়োজন আছে। যদি আপনি Mine Craft এর মতো গেমস বা পুরাতন জাভা অ্যাপলেট ব্যবহার করেন তাহলে। আপনি যদি তাদের একজন হন তাহলে এই টিপস্‌টি আপনাকে যতটুকু সম্ভব নিরাপদ রাখতে সহায়তা করতে। আসুন জেনে নিই জাভা’র সিকিউরিটি সমস্যা থেকে কিভাবে নিজেকে রক্ষা করতে পারেন।
জাভা কি সম্পূর্নরূপে মুছে ফেলতে পারবেন?

কোন কাজের ক্ষেত্রে যদি জাভা ব্যবহারের প্রয়োজন না হয় তাহলে এক্ষুনি তা আন ইন্সটল করে ফেলুন। জাভা যদি আপনার কম্পিউটারে ইন্সটল করা থাকে তাহলে এটি কন্ট্রোল প্যানেলে খুঁজে পাবেন। এমন অনেকে আছেন যারা এখনও উপলব্ধি করতে পারেননি যে জাভা কোথায় লাগে। আপনি যদি এমন একজন হয়ে থাকেন তাহলে তাহলে যত তারাতারি সম্ভব আনইন্সটল করে ফেলুন।

uninstall-java

যদি আনইন্সটল করতে না চান বা এখনও জাভা ব্যবহারের প্রয়োজন আছে। তাহলে নিচের ধাপ গুলো হয়তো ইন্সটলকৃত জাভার সিকিউরিটি সমস্যা থেকে কিছুটা হলেও মুক্তি দিতে পারে।
ডেস্কটপ প্রোগ্রামের জন্য কি জাভা ব্যবহার করছেন?

আপনি কি ডেস্কটপ প্রোগ্রামের জন্য জাভা ব্যবহার করেন? বুঝতে পারছেন না কি বলা হলো? আপনি যদি কম্পিউটারে Mine Craft বা Android SDK’র মতো প্রোগ্রাম কম্পিউটারে ব্যবহার করে থাকেন তাহলে আপনাকে অবশ্যই কম্পিউটারে জাভা ইন্সটল করতে হবে। আপনার যদি জাভাকে শুধু মাত্র ডেস্কটপ প্রোগ্রামের জন্য ব্যবহার করে থাকেন তাহলে জাভা’র ব্রাউজার ইন্টিগ্রেশন ডিজ্যাবল করে দিন। এটা আপনাকে ম্যালিশিয়াশ ওয়েবসাইট থেকে রক্ষা করবে। জাভা ভলনারেবল হলে আপনি যখন অনলাইনে থাকবেন তখন জাভা ব্রাউজার প্লাগইন এর মাধ্যমে ম্যালওয়্যার আপনার কম্পিউটারে লোড হতে পারে তাই প্রয়োজন না থাকলে ব্রাউজার ইন্টিগ্রেশন বন্ধ রাখুন।

জাভা’র ব্রাউজার ইন্টিগেশন ডিজ্যাবল করার জন্য প্রথমে Java Control Panel খুলুন এবং সিকিউরিটি ট্যাবে যান। এখান থেকে Enable Java in the . . .. . . চেক বক্সটিতে টিক চিহ্ন উঠিয়ে দিন। ব্যস কাজ শেষ। এর মাধ্যমে সব ব্রাউজারের সাথে জাভা প্লাগইনের সংযোগ বিছ্‌িছন্ন হলো। তবে ব্রাউজার দিয়ে ডাউনলোড করা অ্যাপলিকেশন গুলো এখনও জাভা ব্যবহার করতে পারবে। Java 7 update 10 এ এটি একটি নতুন অপশন যুক্ত হয়। এর আগে কম্পিউটারে জাভা ডিজ্যাবল করা এতটা সহজ ছিল না।

java-control-panel

জাভা কি ব্রাউজারে ব্যবহার করছেন?

আপনি যদি ঐ সকল ক্ষুদ্র জনগোষ্ঠির একজন হয়ে থাকে যাদের ব্রাউজারে জাভা অ্যাপলেট ব্যবহার করতে হয়। তাহলে আপনাকে নিচের ধাপ গুলো ফলো করতে হবেঃ

এর জন্য আপনাকে একাধিক ব্রাউজার ইন্সটল করতে হবে। প্রধান ব্রাউজারে জাভা ডিজ্যাবল রাখতে হবে এবং সেকেন্ডারি ব্রাউজারে জাভা এনাবল রাখতে হবে। সেকেন্ডারি ব্রাউজার ব্যবহার করে ঐ সকর ওয়েবসাইট ব্যবহার করুন যাতে জাভা ব্যবহার করতে হয়। এ ব্যবস্থা আপনাকে নরমাল ব্রাউজিং থেকে জাভা’র সিকিউরিটি সমস্যা থেকে দূরে রাখবে।

03_disabled_plugins

এছাড়া ক্রোম এবং ফায়ারফক্স Click To Play প্লাগইনস অপশন এনাবল করে রাখতে পারেন।

image57
নিয়মিত জাভা আপডেটেড রাখুনঃ

আপনি যদি জাভা ইন্সটল করেই রাখতে চান তাহলে জাভা নিয়মিত আপডেট করুন। আপডেট সেটিংস পরিবর্তন করার জন্য Java Control Panel খুলুন এবং Update ট্যাবে যান। Check for update Automatically চেক বক্সে টিক দিন এবং Apply ক্লিক করুন। তাহলে স্ব্যংক্রিয়ভাবে জাভা আপডেট হবে। এছাড়া ম্যানুয়ালি জাভা আপডেট করার জন্য আপডেট বাটনে ক্লিক করুন। ডিফল্টভাবে জাভা এক মাস বা সপ্তাহ অন্তর আপডেট চেক করে। চাইলে আপনি এটি পরিবর্তন করতে পারেন। এজন্য Advanced বাটনে ক্লিক করুন এবং Frequency অংশ থেকে Daily, weekly ইত্যাদি সিলেক্ট করুন।

java-update-schudie

এবার যখনই আপনি জাভা’র আপডেট নোটিফিকেশন পাবেন সাথে সাথে জাভা আপডেট করুন।

মনে রাখবেন এর পরও জাভা ভলনারেবল। নতুন সিকিউরিটি প্যাচও হয়তো আপনাকে রক্ষা করতে পারবে না। আর একটি কথা Java এবং Java Script কিন্তু এক জিনিস নয়। Java Script একটি সম্পূর্ন আলাদা ভাষা যা ওয়েব ব্রাউজারে বিল্ট ইন থাকে। বিষয়টি নিয়ে কিছুটা কনফিউশন হয়ে থাকে। আর এ জন্য আমরা Netscape এবং Sun কে সম্পূর্নরূপে দোষারোপ করতে পারি।